ঢাকা, বুধবার ৪ঠা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

পাবনা’র কৃতিসন্তান মঈন আলী কাদেরী’র কৃতিত্ব

 নিউজ রুমঃ Bijoy Bangla BD 24. COM

 প্রকাশিত: মে ৩০, ২০২০, ৮:০৮

৫৫৮ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক : আমাদের এই জনপদ বহুবিধ খ্যাতিমানদের পদচারণায় আলোকিত হয়েছে। অনেকেই উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত রেখেছেন শিল্প, সাহিত্য ও সাংবাদিকতায়। অনেকেই পথ দেখিয়েছেন শিক্ষা ও সামাজিক সচেতনতা বিস্তারে। আবার, অনেকের রাজনৈতিক অঙ্গনে বিচরণ আমাদেরকে করেছে অলংকৃত। আজ এমনি এক ব্যক্তিত্বকে নিয়ে কলম ধরেছি, যিনি তার কর্মের মাধ্যমে শুধু আমাদের প্রাণপ্রিয় পাবনাকে নয় বরং পুরো বাংলাদেশের নাম প্রজ্জ্বলিত করেছেন। তিনি মঈন আলী কাদেরী। যিনি আমাদের পাবনারই সন্তান। বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ নাগরিক। মঈন আলী কাদেরী একাধারে লন্ডনের কাউন্সিলর, পৃথিবীর অন্যতম বৃহত্তম প্রাগৈতিহাসিক রাজনৈতিক সংগঠন ‘সোশালিস্ট লেবার পার্টির’ অডিট অফিসার, এছাড়াও তিনি পৃথিবীর সর্ববৃহৎ শ্রমিকদের অধিকার আদায়ের সংগঠন ‘ইউনাইট দা ইউনিয়ন’ এর ইস্ট লন্ডন শাখার নির্বাচিত সভাপতি। সিটি কর্পোরেশনের বিসনেস লাইসেন্সিং এবং রেগুলেটরি বোর্ডের চেয়ারম্যান। যথাক্রমে সেখানকার সন্মিলিত চ্যারিটি সংগঠন গুলির প্রধান হিসেবে দায়িত্বরত রয়েছেন।স্কুল এবং কলেজ জীবনে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন। পাবনায় অবস্থান কালে স্কুল ও কলেজ বিতর্ক প্রতিযোগিতা, কবিতা আবৃতি, চিত্র অঙ্কন ও নাটকে অংশগ্রহন করতেন তিনি। ছাত্র জীবনে স্কাউট এবং রেডক্রসের কর্মকাণ্ডে সক্রিয় ছিলেন। শৈশবে নিয়মিত পাবনা স্টেডিয়ামে ফুটবল এবং লং-টেনিস অনুশীলন করতেন। সেদিক থেকে বলা চলা, তিনি বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী।তিনি লন্ডনের প্রখ্যাত ‘ইউনিভার্সিটি অফ ইস্ট লন্ডন’ এ অধ্যায়নকালে ছাত্র সংসদের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নির্বাচিত হন। সেই সময়ে ব্রিটিশ সরকারের ‘শিক্ষা বৈষম্য নীতি’ নিয়ে ব্যাপক আন্দোলন গড়ে তোলেন। লন্ডনে ‘ঋণের উপরের চড়া সুদ’ বিরোধী আন্দোলনে তার ভূমিকা ছিল অন্যতম। তিনি ছাত্রজীবনেই বৃটেনের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী টনি ব্লেয়ার, হাউস অব লর্ডসের, লর্ড মরিস, বৃটেনের রানীর মেয়ে প্রিন্সেস এনের মতন খ্যাতিনামাদের সান্নিধ্য লাভের সুযোগ ঘটে রাজনৈতিক কর্ম-কাণ্ডের মাধ্যমে।তিনি ফিন-টেক বা ফাইনান্সিয়াল টেকনোলজি (ইন্টারন্যাশনাল মানি ট্রান্সফার) কনসালটেন্ট হিসেবে কাজ করছেন মাল্টিন্যাশনাল কোম্পানিতে l উনার দাদা অ্যাডভোকেট আজহার আলী ব্রিটিশ শাসন আমলে মেম্বার অফ লাগিসলাটিভে এসেম্বলি (MLA) ছিলেন। তার পিতা এডভোকেট আলহাজ্ব জহির আলী কাদেরী পাবনা আইন সমিতির ৫ বারের নির্বাচিত সভাপতি ছিলেন। তার মা সৈয়দা নিলুফার কাদেরী, একাধারে পাবনার নারী আন্দোলনের অগ্রদূত এবং ‘অনন্য সমাজ কল্যাণ সংস্থা’র প্রতিষ্ঠাতা। তার বড় ভাই মাহফুজ কাদেরী অনন্য গ্রূপের চেয়ারম্যান। মেজ ভাই ব্যারিস্টার মামুন কাদেরী লন্ডন প্রবাসী। উনার সেজো ভাই মাতুজ কাদেরী একজন বিশিষ্ট প্রকৌশলী। মঈন কাদেরীর সহধর্মিনী বার্কিং হসপিটালের সিনিওর ডেন্টাল নার্স। তিনি তিন পুত্র সন্তানের জনক। তার চাচা প্রফেসর মাজহার কাদেরী প্রাক্তন সাংসদ। যিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা ছিলেন।আজকের আলোচিত ব্যক্তি মঈন আলী কাদেরী’র দৃষ্টিকোন থেকে অর্থনৈতিক, সামাজিক, রাজনৈতিক এবং ধর্মীয় বৈষম্য মুক্ত একটি সমাজ ব্যবস্থা, যেখানে ব্যক্তি-স্বাধীনতা,পরিশ্রম এবং প্রতিভার যথার্থ মূল্যায়ন ও ব্যবহারের মাধ্যমে আপামর জনসাধারণের সামাজিক এবং অর্থনৈতিক মুক্তির পথ উন্মোচন করা সম্ভব হবে। যেখানে অপশক্তির অপতৎপরতা মুক্ত শিক্ষা, সংস্কৃতি ও বাণিজ্যের বিস্তার ঘটাবে। সামাজিক নিরাপত্তা, আইন ও অধিকার চর্চার ভিত্তিতে সমাজ ব্যবস্থা পরিচালিত হবে।

সর্বশেষ
আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত


Copyright ©  BijoyBanglaBD24.com                                 Developed by VIP TECHNOLOGY